বিনা নোটিসে বন্ধ ব্যাঙ্ক, নাজেহাল উপভোক্তারা

885
জলপাইগুড়ি,08  মে; বিনা নোটিসে বন্ধ ব্যাঙ্ক, নাজেহাল উপভোক্তারা। এই চিত্র জলপাইগুড়ি শহরের স্টেট ব্যাঙ্কের প্রধান কার্যালয়ের। ব্যাঙ্ক সুত্রে জানানো হয়েছে ব্যাঙ্কের ৩ জন কর্মী বাদ দিয়ে সমস্ত কর্মীদের ভোটের ট্রেনিংয়ে চলে যাওয়ায় ব্যাঙ্ক বন্ধ করতে হয়েছে। সপ্তাহের প্রথম কাজের দিনে হঠাৎ করে ব্যাঙ্ক বন্ধ হওয়ায় বিপাকে পড়েছেন ব্যাঙ্কের গ্রাহক রা। সোমবার সকালে ব্যাঙ্কে পরিসেবা নিতে এসে ব্যাঙ্ক বন্ধের নোটিস দেখতে পান গ্রাহকরা। জলপাইগুড়ি সদর ব্যাঙ্কের ওপর নির্ভর করেন শহর সহ আশেপাশের প্রচুর মানুষ। কিন্তু এদিন হঠাৎ করে ব্যাঙ্ক বন্ধ হয়ে যাওয়ায় চরম সমস্যায় পড়তে হয়েছে গ্রাহকদের। বহু মানুষ এদিন তাদের প্রয়োজনীয় কাজ করতে পারেননি। বেশ কিছু মানুষ তাদের পেনশন নিতে এসে ফিরে গেছেন। শুধু তাই নয় ব্যাঙ্ক পরিসেবা বন্ধ থাকায় অনেকেই ব্যবসায়িক লেনদেন করতে পারেননি। ফলে তাদের প্রচুর আর্থিক ক্ষতি হয়েছে। এদিকে বিনা নোটিসে এই ঘটনায় রীতিমত ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন গ্রাহকরা। জলপাইগুড়ি রেসকোর্স পাড়ার বাসিন্দা মিলন রায় এদিন পেনশন তুলতে এসে ফিরে যান। ক্ষোভ প্রকাশ করে তিনি বলেন, হঠাৎ করে আগাম বিজ্ঞপ্তি ছাড়া এই ভাবে ব্যাঙ্কের পরিসেবা বন্ধ করে দেওয়ায় তাদের হয়রানির শিকার হতে হচ্ছে। যদি ব্যাঙ্ক কতৃপক্ষ আগাম জানিয়ে দিতেন তাহলে তাদের হয়রানির শিকার হতে হত না। তাছাড়া ব্যাঙ্কের মতো একটা জরুরি পরিসেবা বন্ধ করে দেওয়াটা একেবাড়েই অনৈতিক। এদিন ভুজারি পাড়া আমিনুল হক জানান তিনি ব্যবসায়িক লেনদেনের জন্য এই ব্যাঙ্কে এসেছিলেন কিন্তু ব্যাঙ্ক বন্ধ থাকার কারনে সেটা করাগেল না। বিষয়টি নিয়ে ব্যাঙ্ক কতৃপক্ষ জানিয়েছে তাদের কর্মীদের ভোটের প্রশিক্ষনের জন্য নিয়ে যাওয়া হয়েছে সেই কারনেই তারা ব্যাঙ্কের পরিসেবা বন্ধ রাখতে বাধ্য হয়েছেন। অন্যদিকে জেলা শাসক শিল্পা গৌরী সারিয়া জানান, তারা ব্যাঙ্ক বন্ধ রাখার কোন নির্দেশ দেননি। যদি তাদের কর্মীর অভাব থাকত তবে তাদের সেটা জানালে তারা কিছু কর্মীদের ছেড়ে দিতেন। এতে তাদের কোন দায়িত্ব নেই।(এনএ)

Please follow and like us: